শনিবার, ২৫ জুন ২০২২, ০২:১১ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
শিরোনাম :
বাইশারীতে বর্তমান ও সাবেক চেয়ারম্যান অনুসারীদের হামলার অভিযোগ উখিয়া অনলাইন প্রেসক্লাব নির্বাচনে বিভিন্ন পদে ১৮জনের মনোনয়ন সংগ্রহ উখিয়া অনলাইন প্রেসক্লাব’র নির্বাচন : জেলাজুড়ে জল্পনা-কল্পনা উখিয়ার লম্বাশিয়া রোহিঙ্গা ক্যাম্পে অপরাধ জগৎ নিয়ন্ত্রণে যারা ক্যাম্পে কথিত আরসা সদস্যকে গুলি করে হত্যা বৈশ্বিক তহবিল ঘাটতির সাথে খাপ খাইয়ে নিতে সমন্বিত পরিকল্পনা অতীব জরুরী উখিয়ার পূর্বরত্না থেকে গভীর রাতে সংঘবদ্ধ ১৮ রোহিঙ্গা আটক প্রকাশিত সংবাদ প্রসঙ্গে ফুয়াদ আল-খতীব হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বক্তব্য উখিয়া কলেজের গভর্ণিং বডির শিক্ষক প্রতিনিধি নির্বাচন সম্পন্ন: অধ্যাপক তহিদ ও শাহআলম নির্বাচিত রোহিঙ্গা হেড মাঝি খুনের ঘটনায় ৩জন আসামীকে গ্রেফতার করেছে এপিবিএন-৮

নাইক্ষ্যংছড়িতে কোডেক পরিচালিত স্কুল শিক্ষক শাহজালালের সংবাদ সম্মেলন

শামীম ইকবাল চৌধুরী, নাইক্ষ্যংছড়ি(বান্দরবান)থেকে / ২১৫ বার
আপডেট বৃহস্পতিবার, ১৭ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ২:৪২ অপরাহ্ন

 

নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার বাইশারী ইউনিয়নের হলুদিয়া শিয়া গ্রামের মিয়া হোসেনের ছেলে ও উখিয়া রেজিষ্টার ক্যাম্পে কোডেক পরিচালিত জুনিয়র হাই স্কুলের শিক্ষক মোঃ শাহজালাল তার বিরুদ্ধে ফেইসবুক, কয়েকটি অনলাইন পোর্টাল ও কক্সবাজার থেকে প্রকাশিত দৈনিক আমাদের কক্সবাজার পত্রিকায় বৃত্তিহীন,মিথ্যা ও বানোয়াট সংবাদ প্রকাশ করায় এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

বৃহস্পতিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় নাইক্ষ্যংছড়ি প্রেসক্লাবে উপস্থিত হয়ে ক্লাবের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত এ সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন উখিয়া রেজিষ্টার ক্যাম্পে কোডেক পরিচালিত জুনিয়র হাই স্কুলের শিক্ষক মোঃ শাহজালাল।

লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, গত ২বছর যাবৎ নিষ্টার সাথে দায়িত্ব পালন করে আসছি। যাহাতে ১দিন ও অনুপস্থিত নাই। গত ৩ সেপ্টেম্বর ২০২০ইং তারিখে দৈনিক আমাদের কক্সবাজার পত্রিকার ভূয়া পেপার কাটিং দিয়ে এম.ডি. হাবিবুর রহমান রনি নামের একটি ফেইসবুক আইডি থেকে নাইক্ষ্যংছড়িতে এক শিক্ষকের ডাবল চাকুরির শিরোনামে ভূয়া সংবাদ প্রকাশ করা হয়। যাহা সম্পূর্ণ বানোয়াট ও ভিত্তিহীন।

উক্ত ভূয়া সংবাদে আমি নাকি নাইক্ষ্যংছড়ি দোছড়ি নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে কর্মরত আছি। উক্ত ঘটনায় আমি যে দোছড়ি নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক নয় বলে ঐ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হতে লিখিত প্রত্যয়ন নিয়ে আমি আমার যথাযথ কর্তৃপক্ষের কাছে দেওয়া আছে।

তাছাড়া আমাদের কক্সবাজার পত্রিকার সম্পাদক মহোদয়ের সাথে সরাসরি দেখা করে
৩ সেপ্টেম্বরের ভূয়া পেপার কাটিং এর সংবাদটির ব্যাপারে কথা বলি। তিনি আমাকে এ ভূয়া সংবাদের ব্যাপারে পত্রিকা অফিস দায়ভার নিবেনা বলে সাফ জানিয়ে দেন।

প্রকৃত বিষয় হল জায়গা সংক্রান্ত বিরোধ নিয়ে আমার আপন বড় ভাই মো: বেলাল মাস্টার, বাইশারী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক, স্থানীয় সংবাদ কর্মী নামধারী হাবিবুর রহমান রনি নামের কতিপয় ব্যক্তি দিয়ে ভূয়া ও মিথ্যা মানহানিকর পত্রিকার কাটিংসহ সংবাদটি কয়েকটি অনলাইন পোর্টাল ও তার ব্যক্তিগত ফেইসবুক আইডি থেকে প্রকাশ করেছেন। উক্ত মিথ্যা সংবাদ প্রকাশে আমি একজন শিক্ষক হিসাবে বড় ধরনের সম্মান হানি হয়েছে এবং আমার প্রতিষ্ঠানেও মিথ্যা সংবাদের ফটোকপিসহ মিথ্যা অভিযোগ প্রেরণ করেন।

প্রকৃত ঘটনা হল বিগত ২০১৪ সালে দলিল মূলে ৪০(চল্লিশ ) শতক জমি ক্রয় করি এবং ভোগ দখল করে আসছি। একই জমি আবার আমার পিতা হইতে দেশীয় কাগজ মূলে ক্রয় করে ২০১৮ সালে আমার বড় ভাই বেলাল মাস্টার। এ ঘটনাটি এলাকার চেয়ারম্যান, মেম্বার ও গণ্যমাণ্য ব্যক্তিবর্গ সালিশ বৈঠকের মাধ্যমে সমাধান করে। কিন্তু আমার বড় ভাই আমার উপর ক্ষিপ্ত হয়ে আমাকে হুমকি প্রদান করে আসছিল। আমাকে চাকুরী থেকে বহিষ্কারসহ দেখে নিবে।

বিগত দিনে আমার বড় ভাই বেলাল মাস্টার তার শাশুড় বাড়ি উখিয়া কুতুপালং হওয়ার সুবাদে ঐ এলাকার স্থানীয় লোকজন দিয়ে আমাকে প্রকাশ্য মারধরের চেষ্টার পাশাপাশি চাকুরী ছেড়ে চলে যাওয়ার জন্য নিয়মিত হুমকি দিয়ে আসছিল। এছাড়াও আমার নামে বিভিন্ন মিথ্যা অপবাদ ছড়িয়ে আমার কর্মরত প্রতিষ্ঠান প্রধানের কাছে নানান ভূয়া তথ্যবিহীন সংবাদ ও অভিযোগ দিয়ে কান ভারি করে আসছে। যার কারণে আমার অপূরনীয় ক্ষতি ও মান সম্মান ক্ষুণ্ণ হয়েছে।

সংবাদ কর্মী নামধারী হাবিবুর রহমান রনি তার ফেইসবুক আইডি থেকে গত ৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ইং তারিখে আমার নামে আমাদের কক্সবাজার পত্রিকায় অনলাইন পোর্টালে প্রকাশিত ঐ হয়রানির মূলক ও ভূয়া সংবাদটি প্রকাশ করেন। যাহা সম্পূর্ণ মিথ্যা বৃত্তিহীন ও মানহানিকর।

তাই আমি উক্ত ভূয়া সংবাদ প্রকাশের বিরুদ্ধে নাইক্ষ্যংছড়ি প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মিলনের মাধ্যমে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। নাইক্ষ্যংছড়ি প্রেসক্লাবের সিনিয়র সাংবাদিকদের উপস্থিতিতে করা এ সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন দোছড়ি নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ শাহাজাহান, বাইশারী বালিকা মাদ্রাসার সুপার মওলানা রফিকুল ইসলাম প্রমূখ। তিনি উক্ত প্রকাশিত সংবাদে বিভ্রান্তি না হওয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট প্রশাসন ও যথাযত কর্তৃপক্ষের প্রতি অনুরোধ জানান।

 


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো সংবাদ

এক ক্লিকে বিভাগের খবর
%d bloggers like this:
%d bloggers like this: